ফরাসি পণ্য বর্জনের ডাক এরদোয়ানের, বিপাকে ম্যাক্রোঁ

0
23
ইমানুয়েল ম্যাক্রোঁ ও রিসেপ তাইয়েপ এরদোয়ান (ফাইল ছবি)

ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল ম্যাক্রোঁ ইসলাম ও হযরত মুহাম্মদকে (সা.) অবমাননার পদক্ষেপে সমর্থন দিয়েছেন। এ ঘটনায় পুরো মুসলিম বিশ্ব ক্ষুব্ধ ও উদ্বিগ্ন। শুধু তাই নয়, বেশ কয়েকটি আরব দেশ ফ্রান্সের পণ্য বয়কটেরও ডাক দিয়েছে। এবার তুর্কিদের ফ্রান্সের পণ্য বয়কটের আহ্বান জানিয়েছেন তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়েপ এরদোয়ান।

খবর রয়টার্স ও ডয়েচে ভেলের।

এছাড়াও ইসলামবিরোধী ইস্যুতে ইমানুয়েল ম্যাক্রোঁকে থামানোর জন্য ইউরোপীয় ইউনিয়নের নেতৃবৃন্দদের আহ্বান জানিয়েছেন ন্যাটো জোটের এই মিত্র দেশটির প্রধান। শনিবার তুর্কি প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়েপ এরদোয়ান বলেছিলেন, মুসলমানদের নিয়ে ম্যাক্রোঁর সমস্যা রয়েছে। তার মানসিক স্বাস্থ্য সম্পর্কে পরীক্ষা করা দরকার।

এরপরের দিন এবং সোমবার তিনি একই মন্তব্য করেছেন।

 সেই সঙ্গে তিনি বলেন, ফ্রান্সে যেমন ‘তুর্কি ব্র্যান্ড’র পণ্য ক্রয় না করা জন্য বলা হচ্ছে; ঠিক তেমনই আমিও তুরস্কের সব নাগরিককে একই ধরনের আহ্বান জানিয়ে বলছি, কখনই কোনো ফরাসি ব্র্যান্ডকে সহায়তা করবেন না অথবা ফরাসি ব্র্যান্ড’র পণ্যসামগ্রী কিনবেন না। এদিকে, অনেক আরব দেশেই ফরাসি জিনিস, বিশেষ করে মেক আপ সামগ্রী ও সুগন্ধী আর বিক্রি করা হচ্ছে না। শপিং মল বা দোকানের তাক খালি করে দেয়া হয়েছে বলে জানানো হয়েছে ডয়েচে ভেলের বাংলা সংস্করনের এক প্রতিবেদনে।

এদিকে, মহানবী (সা.) এর অবমাননা নিয়ে ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট মাক্রোঁর মন্তব্যের জেরে ফরাসি জিনিস বয়কট করেছে আরব দেশগুলো। সেখানে দোকান থেকে সরিয়ে ফেলা হয়েছে ফ্রান্সের সামগ্রী। মাক্রোঁর মন্তব্যের ফলে কুয়েত, কাতার ও জর্ডনের দোকান থেকে সরিয়ে ফেলা হয়েছে ফরাসি জিনিস। লিবিয়া, সিরিয়া ও গাজা ভূখণ্ডে শুরু হয়েছে বিক্ষোভ ও প্রতিবাদ। এতে মহাবিপাকে পড়েছেন ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল ম্যাক্রোঁ।যদিও পণ্য বয়কট না করতে অনুরোধ করেছে দেশটি।

Leave a Reply